শনিবার ২৮ নভেম্বর ২০২০ ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তে বন্দুকযুদ্ধে রোহিঙ্গা মাদক কারবারি নিহত
মোহাম্মদ আব্দুর রহিম, বান্দরবান প্রতিনিধি
প্রকাশ: বুধবার, ২১ অক্টোবর, ২০২০, ৩:৫৯ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুম ইউনিয়নের সীমান্তে বিজিবির সঙ্গে বন্ধুকযুদ্ধে মো. আদহাম (৩০) নামে এক রোহিঙ্গা মাদক কারবারি মৃত্যু হয়েছে। নিহত ব্যক্তি তুমব্রু কোনাপাড়া রোহিঙ্গা শিবিরের আবুল হাশেমের ছেলে। বুধাবর (২১ অক্টোবর) সকালে ইউনিয়নের সীমান্তের ৩৫ নম্বর পিলারের কাছে এই ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমঘুম ইউনিয়নের তুমব্রু বাইশফাড়ি সীমান্ত দিয়ে মিয়ানমার থেকে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা আসার খবর পেয়ে বিজিবি সেখানে অবস্থান নেন। এ সময় মাদক কারবারি দল মিয়ানমার থেকে আসতে দেখে বিজিবি তাদের ধাওয়া করলে তাদের লক্ষ্য করে গুলি ছোঁড়ে। সেই বিজিবির টহল দলও নিজেদের রক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়। তখন অজ্ঞাত ইয়াবা ব্যবসায়ীরা পাহাড়ি জঙ্গলের মধ্য দিয়ে মিয়ানমারের ভিতরে পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে এক রোহিঙ্গাকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় দেখতে পায়। 

এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশীয় একনলা বন্দুক, দুই রাউন্ড কার্তুজ এবং ৪০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করায়। গুলিবিদ্ধ ওই রোহিঙ্গাকে উদ্ধার করে উখিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে কক্সবাজারের ৩৪ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্ণেল আলী হায়দার আজাদ আহমদ বলেন, উদ্ধারকৃত ইয়াবার মূল্য প্রায় ১ কোটি ২০ লাখ টাকা। গুলিসহ অস্ত্র ও ইয়াবা উদ্ধারের ঘটনায় আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। 


« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »






সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ ওয়াকিল উদ্দিন
সম্পাদক: রফিকুল ইসলাম রতন

প্রকাশক: স্বদেশ গ্লোবাল মিডিয়া লিমিটেড-এর পক্ষে মোঃ মজিবুর রহমান চৌধুরী কর্তৃক আবরন প্রিন্টার্স,
মতিঝিল ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও ১০, তাহের টাওয়ার, গুলশান সার্কেল-২ থেকে প্রকাশিত।
ফোন: ৯৮৫১৬২০, ৮৮৩২৬৪-৬, ফ্যাক্স: ৮৮০-২-৯৮৯৩২৯৫। ই-মেইল : e-mail: [email protected], [email protected]
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ ওয়াকিল উদ্দিন
সম্পাদক: রফিকুল ইসলাম রতন
প্রকাশক: স্বদেশ গ্লোবাল মিডিয়া লিমিটেড-এর পক্ষে মোঃ মজিবুর রহমান চৌধুরী কর্তৃক আবরন প্রিন্টার্স,
মতিঝিল ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও ১০, তাহের টাওয়ার, গুলশান সার্কেল-২ থেকে প্রকাশিত।