বৃহস্পতিবার ১৩ আগস্ট ২০২০ ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭

কুমিল্লায় ব্যবসায়ি মতিনের হত্যাকারিদের গ্রেফতারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন
সৈয়দ আহসান হাবিব পাখি, কুমিল্লা প্রতিনিধি
প্রকাশ: রোববার, ১২ জুলাই, ২০২০, ৪:০২ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

কুমিল্লায় ব্যবসায়ি মতিনের হত্যাকারিদের গ্রেফতারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন

কুমিল্লায় ব্যবসায়ি মতিনের হত্যাকারিদের গ্রেফতারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন


কুমিল্লা নগরীর চকবাজারের বিশিষ্ট ব্যবসায়ি ও বৃহত্তর সংরাইশ টিক্কাচর সমাজ কল্যাণ পরিষদ এর সর্দার আব্দুল মতিনের হত্যাকারিদের গ্রেফতার ও ফাঁসি চেয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছে নিহতের পরিবার ও স্থানীয় জনগণ। সংবাদ সম্মেলন শেষে ঘাতকদের বিচার চেয়ে মানববন্ধন করেছে ১৬ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দারা। রোববার (১২ জুলাই) সকালে ১৬ নং ওয়ার্ডে নিহতের বাড়ির সামনে সংবাদ সম্মেলন ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।সংবাদ সম্মেলনে নিহতের সন্তান মোঃ শামীম উদ্দিন জানান,গত ২৯ মার্চ এলাকার মাদক ব্যবসায়ি ও সন্ত্রাসী আল আমিন বাহিনী আমাদের উপর দা ছেনি ও লাঠি ও চাপাতি নিয়ে হামলা করে। এ সময় আমার বাবা গুরুতর আহত হয়। ৩০ মার্চ ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আমার বাবা আব্দুল মতিন মারা যান। আমার বাবা ৪০ বছর ধরে সমাজের উন্নয়নমূলক কাজ করে আসছিলেন। কিন্তু মাদক ব্যবসায়ি, চাদাঁবাজ ও সন্ত্রাসীরা আমার বাবার কর্মকান্ডকে ভালো চোখে নেয়নি। এলাকায় গত ৭/৮ বছরে কয়েকজন গডফাদারের নেতৃত্বে একাধিক সন্ত্রাসী বাহিনী গড়ে উঠে। ২০০৩ সালে সংরাইশে প্রকাশ্যে মহিন হত্যান মধ্য দিয়ে জনু ও তার বাহিনীর সন্ত্রাসী রাজত্বের যাত্রা শুরু হয়। ২০১১ সালের সিটি নির্বাচনের পর জনু বাহিনীর তান্ডবলীলা ও সহিংসতা আরো বেড়ে যায়। ২০১৫ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর মহিনের চাচা শহীদকে প্রকাশ্যে হত্যা করে । জনু গ্রেফতার হয়। এরপর শুরু হয় জনুর সেকেন্ড ইন কমান্ড আল আমিন বাহিনীর তান্ডবলীলা। তারা মাদক ব্যবসা, চাদাঁবাজি, ডাকাতি ও অস্ত্র ব্যবসাসহ নানা অপকর্ম শুরু করে। তারাই কারোর নির্দেশে আমার বাবাকে হত্যা করে। তার বিরুদ্ধে হত্যাসহ ১০/১২টি মামলা চলমান রয়েছে।  সেই মদদদাতারা কারা গত ২৯ মার্চ থেকে তাদের মোবাইল ট্র্যাকিং করলে তাদের সন্ধান পাওয়া যাবে। খুনি পরিবার ও খুনীরা মিডিয়াকে ধোকা দিয়ে কুমিল্লা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে, তা দু:খজনক। আমার বাবার হত্যাকারিদের বাচাঁনোর জন্য খুনিরা আমার জেঠাতো ভাই আক্তার ও আরো অন্যান্য সম্মানিত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে। আমার বাবার হত্যার ঘটনায় জড়িত ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে ডিবি পুলিশ। তাই পুলিশ সুপারসহ জেলা পুলিশকে ধন্যবাদ জানাই। আশা করি বাকি ১১ জন আসামিও গ্রেফতার হবে। সকল ঘাতকদের অচিরেই গ্রেফতার করে ফাঁসি করার কার্যকর করার জন্য প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষন করছি।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন নিহতের সন্তান মোঃ শামীম উদ্দিন, ফারুক , আব্দুল হালিম, ভাবী হাসু ও ভাবি রেনু।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »



সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ ওয়াকিল উদ্দিন
সম্পাদক: রফিকুল ইসলাম রতন

প্রকাশক: স্বদেশ গ্লোবাল মিডিয়া লিমিটেড-এর পক্ষে মোঃ মজিবুর রহমান চৌধুরী কর্তৃক আবরন প্রিন্টার্স,
মতিঝিল ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও ১০, তাহের টাওয়ার, গুলশান সার্কেল-২ থেকে প্রকাশিত।
ফোন: ৯৮৫১৬২০, ৮৮৩২৬৪-৬, ফ্যাক্স: ৮৮০-২-৯৮৯৩২৯৫। ই-মেইল : e-mail: [email protected], [email protected]
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ ওয়াকিল উদ্দিন
সম্পাদক: রফিকুল ইসলাম রতন
প্রকাশক: স্বদেশ গ্লোবাল মিডিয়া লিমিটেড-এর পক্ষে মোঃ মজিবুর রহমান চৌধুরী কর্তৃক আবরন প্রিন্টার্স,
মতিঝিল ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও ১০, তাহের টাওয়ার, গুলশান সার্কেল-২ থেকে প্রকাশিত।